1. [email protected] : Admin : sk Sirajul Islam siraj siraj
  2. [email protected] : admi2017 :
  3. [email protected] : Sk Sirajul Islam Siraj : Sk Sirajul Islam Siraj
  • E-paper
  • English Version
  • শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ১১:৫৯ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
বিনোদন :: গান গাইতে গাইতে মঞ্চেই গায়কের মর্মান্তিক মৃত্যু!,  খেলার খবর : অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপ চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ, বিমানবন্দরে যুবাদের জানানো হবে উষ্ণ অভ্যর্থনা,

নূতন বছরের সংকল্প – আফতাব চৌধুরী

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১০ এপ্রিল, ২০২২
  • ৬৮৩ বার পঠিত

“তোরা সব জয়ধ্বণি কর
তোরা সব জয়ধ্বণি কর
ঐ নূতনের কেতন ওড়ে কাল বৈশাখীর ঝড়।”

আট দশকেরর বেশি সময় পূর্বে আমাদের জাতীয় কবি নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে জাতির প্রতি এভাবেই জানিয়েছিলেন আহবান। আজ এতকাল পরে এসেও আমাদের তাঁর ভাষাতেই বরণ করতে হয় নতুন বছরকে। কালের অন্তহীন প্রবাহে মিশে গেল বহমান বাংলার আরর একটি বছর। বিদায় নিল ১৪২৭ বঙ্গাব্দ। এলো নতুন বছর চৌদ্দশ আঠাশ। নতুন বছরের প্রথম প্রভাতে আমরা নববর্ষকে আহবান জানিয়ে বলি ঃ-
“তাপস নিঃশ্বাস বায়ে
মুমূর্ষরে দাও উড়ায়ে
বৎসরের আবর্জনা
দূর হয়ে যাক যাক যাক।”

বাংলার নববর্ষ সর্বজনীন উৎসব। ধর্ম নিরপেক্ষতা ও সর্বজনীন তার মধ্যে রয়েছে এ উৎসবের চরিত্র। আবহমানকাল থেকে ধর্ম-বর্ণ-গোত্র নির্বিশেষে বাংলার ঘরে ঘরে এ উৎসব পালিত হয়ে আসছে। অবশ্য নতুন বছরকে স্বাগত জানানোর রীতি বিশ্বের বিভিন্ন নরগোষ্ঠীর মধ্যে রয়েছে। প্রত্যেক জাতি নানা নামে নানা অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে পালন করে থাকে বর্ষবরণের উৎসব। ইংরেজ-ফরাসী-জার্মান-মার্কিনদের যেমন রয়েছে নিউ ইয়ার তেমনি ইরানী-পারসীদের রয়েছে নররোজ। মোগলরাও এক সময় মহাসমারোহে পালন করতো তাদের বছরের প্রথম দিনে ‘নররোজ’ উৎসব। বাঙ্গালীর নববর্ষ আমাদের ইতিহাস-ঐতিহ্য-কৃষ্টির সমন্বিত রচিরায়ত রূপ। দুঃখের স্মৃতি হলো-পাকিরানী শাসনামলে আমাদের পরাধীনতার যুগে শাসকগোষ্ঠী আমাদের প্রথমে শোনালো বাংলা নববর্ষ উদযাপন নাকি ভিন ধর্মীয় সম্প্রদায়ের অনুষ্ঠান, মুসলমানদের তা করতে নেই। আনন্দের কথা হলো, জাতিকে বিভ্রান্ত করার পাকিস্তানী শাসকগোষ্ঠীর এ প্রয়াস সফল হয়নি। নতুন বছরের প্রথম দিন পয়লা বৈশাখ উদযাপনের মধ্য দিয়ে জাতি-ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে এ দেশের মানুষ সেদিন প্রতিবাদ করেছিল এ সাম্প্রদায়িক প্রচারের। এদিক থেকে বাংলাদেশের জাতীয় জীবনে নববর্ষ বা পয়লা বৈশাখ উদযাপনের গুরুত্ব ঐতিহাসিক ও অপরিসীম আর এর আবেদন চিরন্তন।
পুরানো বছর চলে যায় কিন্তু রেখে যায় তার পদচিহ্ন ব্যাষ্টি-সমষ্টি ও রাষ্ট্রীয় জীবনের সফলতা-ব্যর্থতায় মানুষ ব্যর্থতার অভিজ্ঞতা থেকে শিক্ষাগ্রহণ করে সফলতায় উত্তরণের দীক্ষা গ্রহণ করে নতুন বছরের প্রথম দিনে। চৈত্র দিনের ঝরা পাতার কোলে যে দিনগুলো হারিয়ে গেল তারাও রেখে গেছে তাদের পদচিহ্ন। সেসব পদচিহ্নে রয়েছে সাফল্যের চেয়ে ব্যর্থতারই বেশি পরিচয়। নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিষপত্রের আকাশচুম্বী দাম সাধারণ মানুষের জীবনকে করেছে দুর্বিষহ। হত্যা-রাহাজানি-ধর্ষণ-ছিনতাই-সন্ত্রাস ইত্যাদি ভয়ঙ্কর সামাজিক অপরাধের প্রাবল্য অপরাধীদের তান্ডব নৃত্য নিরীহ মানুষকে করে তুলেছে আতঙ্কিত। আইনী বাহিনীর সীমাহীন বে-আইনী নৃশংস কার্যকলাপ, গণতন্ত্র রক্ষার নমে স্বৈরতন্ত্রের মুখব্যাদান, ধর্মের নামে অধর্ম বা সা¤প্রদায়িকতার সশস্ত্র আস্ফালনে নিরীহ-নিরপরাধ জনগণকে কাটাতে হয়েছে এক অজানা আশংকার মধ্যে গোটা বছর। অতীতের বোমাবাজি, হত্যাকান্ডের প্রকৃত অপরাধীদের টিকিটির ছোঁয়া যায়নি। প্রকৃতপক্ষে বছরের এমন বীভৎস রূপ স্বাধীনতাত্তোর বাংলাদেশের মানুষ এর আগে খুব কমই দেখেছেন। আমাদের মুক্তিযুদ্ধের সময় ছাড়া এমন দুর্বিপাকে জাতিকে এর আগে পড়তেও হয়নি। এই বীভৎসতা ও ভয়াবহতা যদি নতুন বছরের জাতিকে দেখতে হয় তাহলে সেটা হবে খুবই দুর্ভাগ্যজনক।
বাংলার সাধনা মনুষ্যত্বের সাধনা। হাজার বছরের বাঙ্গালীর জীবনে দুদৈর্ব বড় কম আসেনি। কিন্তু মনুষ্যত্বের সাধনা ও মানবতার আহŸানের মধ্য দিয়ে বাঙ্গালী সকল প্রতিকূলতাকে মোকাবেলা করেছে। তাই এ সাধনা ব্যাহত হোক, এতে বিঘœ সৃষ্টি হোক-এটা কোন কালেই বাঙ্গালী চায়নি, চাইতে পারেনা। এদেশের সাধক কবির মুখেই উচ্চারিত হয়েছে, ‘সবার উপওে মানুষ সত্য তাহার উপরে নাই।’
কবি রবীন্দ্রনাথ নববর্ষকে চিহ্নিত করেছেন ‘মনুষ্যত্ব লাভের দূর সাধনার’ জন্য সংকল্প গ্রহণের দিনরূপে। দেশে গত বছরে প্রতিদিনই দেখা গেছে মনুষ্যত্বের চরম অবমাননার একটা না একটা ঘটনা। আর তাতে বিশ্বের কাছে দেশ ও জাতির মাথা হয়েছে হেঁট। এ-থেকে আমাদের মুক্তি পেতে হবে। তাই নতুন বছরে আমাদের সংকল্প হোক-মনুষ্যত্বের সাধনার আর অঙ্গীকার হোক মানবতা রক্ষার জন্য যে কোন ত্যাগ স্বীকারের। আমাদের সকলের সমবেত কন্ঠে উচ্চারিত হোক-
“সংকেচের বিহ্বলতায় নিজেরে অপমান
সংকটের কল্পনাতে হয়ো না ম্রিয়মান
মুক্ত করো ভয়
আপন মাঝে শক্তি ধর, নিজেরে কর জয়।”

সাংবাদিক ও কলামিস্ট।

 

 

প্লিজ আপনি ও অপরকে নিউজটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করছি

এ জাতীয় আরো খবর..