1. newsmkp@gmail.com : Admin : sk Sirajul Islam siraj siraj
  2. info@fxdailyinfo.com : admi2017 :
  3. admin@mkantho.com : Sk Sirajul Islam Siraj : Sk Sirajul Islam Siraj
  • E-paper
  • English Version
  • শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ০৭:৪২ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
বিনোদন :: গান গাইতে গাইতে মঞ্চেই গায়কের মর্মান্তিক মৃত্যু!,  খেলার খবর : অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপ চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ, বিমানবন্দরে যুবাদের জানানো হবে উষ্ণ অভ্যর্থনা,

বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিশুকে বিমানে উঠতে বাধা, ইন্ডিগোকে শোকজ

  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ১৭ মে, ২০২২
  • ৪৩৯ বার পঠিত

আর্ন্তজাতিক ডেস্ক :: বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিশুকে বিমানে উঠতে বাধা দিয়ে তুমুল বিতর্ক তৈরি করেছিল ইন্ডিগো। সেই ঘটনায় এবার এই বিমান সংস্থার বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করল ডিরেক্টর জেনারেল অব সিভিল এভিয়েশন (ডিজিসিএ)। ঘটনার তদন্তের পর সিভিল অ্যাভিয়েশনের তরফে সাফ জানিয়ে দেওয়া হল, সত্যিই ওই শিশুর সঙ্গে সঠিক আচরণ করা হয়নি। যাত্রীর সঙ্গে এমন খারাপ ব্যবহারের জন্য তাদের শোকজ নোটিসও ধরানো হল।

গত ৮ মে রাঁচি বিমানবন্দরে হায়দরাবাদগামী ইন্ডিগো বিমানে উঠতে বাধা দেওয়ার অভিযোগ ওঠে বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন এক শিশুকে। তার পরিবারের সদস্যরাই সোশ্যাল মিডিয়ায় তিক্ত অভিজ্ঞতার কথা শেয়ার করেন। তাতে নেটিজেনদের প্রতিক্রিয়া দেখে বিষয়টি নজরে আসে মন্ত্রী জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার। এরপর তিনি তীব্র প্রতিক্রিয়া জানান, “কোনও মানুষের সঙ্গেই এমন আচরণ করা যায় না। কেন্দ্র এ বিষয়ে ‘জিরো টলারেন্স’ নীতি নিয়েছে। আমি নিজে এ নিয়ে তদন্তের কাজ খতিয়ে দেখব। দোষ প্রমাণিত হলেই কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”

এরপরই ঘটনাটি খতিয়ে দেখার দায়িত্ব নিয়েছিল ডিজিসিএ। তাদের তরফে এদিন জানানো হয়, কমিটি প্রাথমিক ভাবে পর্যবেক্ষণের পর প্রমাণ পেয়েছে যে ওই যাত্রীর সঙ্গে সঠিক ভাবে ব্যবহার করা হয়নি। সেই কারণেই এই বিমান সংস্থাকে শোকজ নোটিস দেওয়া হল। আগামী ১০ দিনের মধ্যে নোটিসের জবাব দিতে হবে। কেন, কোন পরিপ্রেক্ষিতে এমনটা ঘটেছে, তা বিস্তারিত জানাতে হবে ইন্ডিগোকে। সেই উত্তর দেখেই পরবর্তী পদক্ষেপ করা হবে।

শোকজ নোটিস পাওয়ার কথা স্বীকার করে জনপ্রিয় এই বিমান সংস্থা জানিয়েছে, “ডিজিসিএ-র সঙ্গে এ বিষয়ে আমাদের তরফে যোগাযোগ করা হয়েছে। আমরা শীঘ্রই এর উত্তর দেব।” উল্লেখ্য, এই ঘটনা নিয়ে বিতর্ক দানা বাঁধতেই ইন্ডিগো সাফাই দিয়ে জানিয়েছিল, ওই শিশু বিমানে উঠতে ভয় পাচ্ছিল। তার জন্য অন্য যাত্রীরাও বিব্রত হচ্ছিলেন। গ্রাউন্ড স্টাফরা ওই শিশুকে শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত বিমানে তোলার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়। কিন্তু সোশ্যাল মিডিয়া সূত্রে জানা যায়, বিমান কর্মীরা ওই শিশুর সঙ্গে অমানবিক আচরণ করছিলেন। এবার দেখার তারা ডিজিসিএ-কে কী উত্তর দেয়।

প্লিজ আপনি ও অপরকে নিউজটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করছি

এ জাতীয় আরো খবর..