1. [email protected] : Admin : sk Sirajul Islam siraj siraj
  2. [email protected] : admi2017 :
  3. [email protected] : Sk Sirajul Islam Siraj : Sk Sirajul Islam Siraj
ব্রেকিং নিউজ :
বিনোদন :: গান গাইতে গাইতে মঞ্চেই গায়কের মর্মান্তিক মৃত্যু!,  খেলার খবর : অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপ চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ, বিমানবন্দরে যুবাদের জানানো হবে উষ্ণ অভ্যর্থনা,

এসি মিলানকে হারিয়ে বার্সার যুক্তরাষ্ট্র সফর শেষ

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২ আগস্ট, ২০২৩
  • ৮৫ বার পঠিত

ডেস্ক রিপোর্ট : যুক্তরাষ্ট্র সফর বাজেভাবে শুরু হলেও শেষটা দারুণ হলো বার্সেলোনার। লাস ভেগাসে মঙ্গলবারের প্রীতি ম্যাচে এসি মিলানকে ১-০ গোলে হারালো লা লিগার বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। চমৎকার স্ট্রাইকে আনসু ফাতি ম্যাচের পার্থক্য গড়ে দেন।

হাফ টাইমে বেঞ্চ ছাড়েন ফাতি। মাঠে নামার ১০ মিনিট পরই ছাপ রাখেন তিনি। বাঁ দিক থেকে কাট করে বক্সের ভেতরে ঢুকেই বাঁকানো শটে জাল কাঁপান তিনি।

বার্সা ফরোয়ার্ড এই গোল উদযাপন করেন টাচলাইনে থাকা সতীর্থ উসমান দেম্বেলের সঙ্গে। পিএসজির সঙ্গে তার ট্রান্সফার নিয়ে বার্সার আলাপ চলায় স্কোয়াডে ছিলেন না ফরাসি ফরোয়ার্ড।

যুক্তরাষ্ট্র সফরে বার্সার শুরু হয়েছিল আর্সেনালের কাছে হেরে। দ্বিতীয় ম্যাচে রিয়াল মাদ্রিদকে হারায় তারা।

শেষ লড়াই হলো হাড্ডাহাড্ডি। এলিজায়ান্ট স্টেডিয়ামে শুরুর একাদশে ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের উইঙ্গার ক্রিস্টিয়ান পুলিসিচ। ঘরের দর্শকদের সামনে পায়ের দারুণ কাজ দেখান তিনি। একবার তো মার্কোস আলোনসো তাকে থামাতে গিয়ে হলুদ কার্ড দেখে বসেছেন। তবে বার্সা শিগগিরই সুযোগ তৈরি করতে থাকে।

রোনাল্ড আরাউজোর হেড সেভ করেন মাইক মাইগনান। তারপর জুলেস কোন্দে পোস্টে আঘাত করেন। ফেরান তোরেসের ফিরতি শট ব্লক করেন ফিকায়ো তোমোরি।

মাইগনান আরেকবার পরীক্ষায় উতরে যান। রাফিনহার ২৫ গজ দূর থেকে নেওয়া শট বাইরে পাঠান মিলান গোলকিপার। এ ছাড়া তোরেসের দূরের পোস্টে নেওয়া হেডও লক্ষভ্রষ্ট করেন তিনি।

প্রথমার্ধে মিলানও সুযোগ তৈরি করেছিল। তিজানি রেইন্ডার্সকে রুখে দেন ইনাকি পেনা। তোমোরির হেড বারের ওপর দিয়ে যায় এবং রাফায়েল লিয়াওর শট সরাসরি পেনার হাতে পড়ে।

বিরতির সময় বার্সা পাঁচটি পরিবর্তন করে এবং তাদেরই একজন ফাতি গোলমুখ খোলেন আলেজান্দ্রো বালদের যোগসাজশে।

মিলান সমতা ফেরানোর খুব কাছে ছিল। কিন্তু লিয়াওর শট বারের ওপর দিয়ে যায়। বার্সার ব্যবধান বাড়েনি ওরিওল রোমেউর হেড বারের পাশ দিয়ে গেলে। আরাউজোর একটি গোল তো বাতিল হলে অফসাইডে।

শেষ দিকে দুটি দলই সুবর্ণ সুযোগ পেয়েছিল। রেইন্ডার্সের ছয় গজ দূর থেকে নেওয়া শট গোলবারের পাশ দিয়ে যায়। ফাতির গোল হতে বসেছিল, কিন্তু তরুণ মিলান ডিফেন্ডার ডেভিড বার্তেসাগি ব্লক করেন।

আগামী ১৩ আগস্ট বার্সার লা লিগা অভিযান শুরু হবে গেটাফের সঙ্গে।

প্লিজ আপনি ও অপরকে নিউজটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করছি

এ জাতীয় আরো খবর..