1. newsmkp@gmail.com : Admin : sk Sirajul Islam siraj siraj
  2. info@fxdailyinfo.com : admi2017 :
  3. admin@mkantho.com : Sk Sirajul Islam Siraj : Sk Sirajul Islam Siraj
  • E-paper
  • English Version
  • শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ০৬:১০ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
বিনোদন :: গান গাইতে গাইতে মঞ্চেই গায়কের মর্মান্তিক মৃত্যু!,  খেলার খবর : অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপ চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ, বিমানবন্দরে যুবাদের জানানো হবে উষ্ণ অভ্যর্থনা,

নোবেলের বিরুদ্ধে স্ত্রীর বিস্ফোরক মন্তব্য

  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৫ জুলাই, ২০২১
  • ২২০ বার পঠিত

বিনোদন ডেস্ক :: মইনুল আহসান নোবেলের বিরুদ্ধে আরও বিস্ফোরক অভিযোগ আনলেন তাঁর স্ত্রী সালসাবিল মাহমুদ। সোশ্যাল মিডিয়া পোস্ট পাল্টা পোস্টে তুঙ্গে দাম্পত্য কলহ। তবে কলহ না বলে একে কাদা ছোঁড়াছুড়ি বলাই ভাল। স্ত্রীয়ের বিরুদ্ধে এক লম্বা পোস্টে নোবেল গর্ভপাতের অভিযোগ আনার পর চুপ থাকেননি সালসাবিল মাহমুদও। আগেরবার মা হওয়ার দাবিকে খারিজ করার পর এবার ফেসবুক পোস্টে আরও গুরুতর অভিযোগ তুললেন বাংলাদেশের এই বিতর্কে থাকা শিল্পীর স্ত্রী সালসাবিল মাহমুদ।

নোবেলের স্ত্রীয়ের সন্দেহ শিল্পীর আসন্ন গান মেহেরবান-এর প্রোমোশনের জন্য নোবেল বাবা হওয়ার খবরটি ব্যবহার করছে। একইসঙ্গে সমস্ত দোষ নিজের স্ত্রীয়ের ঘাড়ে চাপিয়ে বেচারা সাজার চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ সালসাবিলের। নিজের ফেসবুক পোস্টে গায়কের স্ত্রী প্রশ্ন তুলেছেন- ‘আমি জানি না এটা সত্য কিনা নিজের গানের প্রোমোশনের জন্য মাতৃত্বকে ব্যবহার করছ l যেখানে আমি তোমার স্ত্রী সেখানে তোমার কথা আমাকে তোমার স্ট্যাটাসের মাধ্যমে কেনও জানতে লাগে?’এখানেই শেষ নয়, নোবেল স্ত্রীয়ের বিরুদ্ধে যে গর্ভপাতের অভিযোগ এনেছে তা সর্বৈব ভুল বলে দাবি সালসাবিলের। তিনি নিজের পোস্টে একের পর এক যুক্তি সাজিয়েছেন। পোস্টে লেখেন- ‘অ্যাবরশনের তথ্য সম্পূর্ণ ভুল l যদি বাবা হবার বিষয়টা সত্যিই নোবেলের জন্য গর্বের হয় তাহলে আমার সঙ্গে কেনও সে কোনওরকম যোগাযোগই করবে না? আমি যদি নিজেই চাই সন্তান নিতে (নোবেলের ভাষ্য ) তাহলে আমি নিজেই অ্যাবরশনের কথা বলব ? আমার স্বাস্থ্যের কি আমার নিজের কাছে কোনও মূল্য নেই? সে জানেই না মেডিকেল টেস্টে কি আসবে আর সে বলছে আমি তার বাচ্চাকে অ্যাবর্ট করেছিl ‘

 

শুধু তাই নয়, পোস্টে নোবেল অভিযোগ করেছিলেন স্ত্রী তাঁর সঙ্গে কোনও যোগাযোগ রাখেন না। তাও মিথ্যে বলে দাবি করেছেন তাঁর স্ত্রী সালসাবিল। উল্টে নোবেলের বিরুদ্ধে তিনি যোগাযোগ বন্ধ রাখার অভিযোগ এনেছেন। তাঁর নম্বর ব্লক করে রেখেছে বলে দাবি সালসাবিলের। পোস্টে ক্ষুব্ধ স্ত্রী লিখেছেন-‘নোবেল নিজের জান না থাকলেও বাচ্চাকে বাঁচাতো কিন্তু আমার ফোন নম্বর তার ব্লকলিস্টে l কথাগুলো আমি বলতে চাইনি কিন্তু বিয়ের পর একজন স্বামীর ফরজ তার স্ত্রীর সব রকম ভরন পোষণ বহন করা সেখানে তুমি জানোই না যে স্ত্রী কি খাচ্ছে পড়ছে l বিভিন্ন মেয়ে, ছেলে ফ্রেন্ডসদের নিয়ে রেস্টুরেন্টে ছবি দেখি আর নিজের বউ কি খাচ্ছে এটা নিয়ে কোনও মাথা ব্যথাই নেই? নির্দিষ্টভাবে বাবা মা হবার স্ট্যাটাসের পরই কেনও যোগাযোগ বন্ধ এবং হাজার চে ষ্টা করেও আমি যোগাযোগে ব্যর্থ?’

বাবা হতে চলেছেন, বাংলাদেশের গায়ক মইনুল আহসান নোবেল এই খবর সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করার পর থেকেই বিতর্কের সূত্রপাত। প্রথমে নিজের বক্তব্য নিয়ে ট্রোলার্সদের নিশানায় পড়েন তিনি। তারপর তাঁর স্ত্রী সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে গর্ভবতী নন দাবি করার পরই তুঙ্গে ওঠে বিতর্ক। এতেই শেষ হয় না বিতর্ক। স্ত্রীয়ের বিরুদ্ধে গর্ভপাতের গুরুতর অভিযোগ সহ একাধিক অভিযোগ এনে লম্বা পোস্ট করেন নোবেল। তিনি বলেন,’বাবা হওয়ায় খবর ফেসবুকে পোস্ট করার কিছুক্ষণের মধ্যে আমার স্ত্রী, সালসাবিল আমাকে ফোন করে অ্যাবোর্শান করে ফেলার হুমকি দেয়। কারণ, আমি নাকি তাঁর বাচ্চার বাবা হওয়ার যোগ্য নই। আমার অনেক হেটার্স! অনেক বিতর্ক আমাকে নিয়ে। ব্যাঙ্ক ব্যালেন্স এই মুহূর্তে একটু কম। কারণ, আমাদের শিল্পীদের গত বছর মার্চ থেকে অনুষ্ঠান বন্ধ। তাছাড়া দু’জন প্রাপ্তবয়স্ক ছেলে-মেয়ে স্বসম্মতিতে বিয়ে করেছি, তাই আমার স্ত্রীর বাপেরবাড়ি কোনওভাবেই আমাদের বিয়ে টিকতে দেবে না। এমনকী আমার ঘরের তালা ভেঙে ঢুকে ভয় দেখানোর চেষ্টা করা হয়েছে।’

তার জবাবেই ফের সালসাবিলের এদিনের পোস্ট। উল্লেখ্য, আগামী কয়েকদিনের মধ্যেই নোবেলের নতুন গান মেহেরবান আসছে বলে সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজেই জানিয়েছেন নোবেল। এপার বাংলায় জি বাংলায় রিয়্যালিটি শো সারেগামাপা-এর হাত ধরে খ্যাতির শীর্ষে উঠেছিলেন নোবেল কিন্তু বিতর্কের ধাক্কায় অনুরাগীদের সে মোহ কাটতে সময় লাগেনি। ২৪ বছর বয়সী এই গায়কের কীর্তিতে সারাক্ষণ শোরগোল নেটপাড়ায়। কখনও বাংলাদেশের রকস্টার জেমসকে জড়িয়ে অশ্লীল পোস্ট তো কখনও ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদীকে টার্গেট। এর আগে গানের প্রচারের জন্যই এই কাণ্ড ঘটিয়েছিলেন বলে নিজেই স্বীকার করেছিলেন নোবেল। কখনও আবার বাংলাদেশের টিভি সাংবাদিককে মোবাইল ফোনে অপহরণের হুমকি দিয়ে বিতর্কে জড়িয়েছিলেন শিল্পী। ত্রিপুরায় এফআইআরও দায়ের হয়েছিল নোবেলের বিরুদ্ধে। এমনকী ভারতে এলেই তাঁকে গ্রেফতার করা হবে বলেও শোনা গিয়েছিল। সোশ্যাল পোস্টেই ক্ষমা চেয়ে সব বিতর্ক মিটমাট করেন বাংলাদেশের শিল্পী।

 

প্লিজ আপনি ও অপরকে নিউজটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করছি

এ জাতীয় আরো খবর..