1. [email protected] : Admin : sk Sirajul Islam siraj siraj
  2. [email protected] : admi2017 :
  3. [email protected] : Sk Sirajul Islam Siraj : Sk Sirajul Islam Siraj
ব্রেকিং নিউজ :
বিনোদন :: গান গাইতে গাইতে মঞ্চেই গায়কের মর্মান্তিক মৃত্যু!,  খেলার খবর : অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপ চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ, বিমানবন্দরে যুবাদের জানানো হবে উষ্ণ অভ্যর্থনা,

কানাইপুর গ্রামের ছত্তার মিয়া হত্যা ও অস্ত্র উদ্ধার ০২জনকে আসামী করে হত্যা ও অস্ত্র মামলা দায়ের

  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১৭ জানুয়ারী, ২০১৬
  • ২২৫ বার পঠিত

ষ্টাফ রিপোর্টার: হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ উপজেলার কানাইপুর গ্রামস্থ হারিছ মিয়া এর পুত্র ছত্তার মিয়া সন্ত্রাসীদের আক্রমনের স্বীকার হয়ে বিগত ১৪/০১/২০১৬ইং তারিখে দুপুর ১২:৩০ ঘটিকার সময় মৃত্যুবরণ করেন। স্থানীয় কানাইপুর গ্রামের লোকজনের সহিত আলোচনা করে জানা যায় যে, কানাইপুর গ্রামের স্থানীয় একই পরিবারের ০২ ভাইয়ের সাথে দীর্ঘদিন যাবৎ পৌর নির্বাচনকে ঘিরে একই এলাকার ছত্তার মিয়ার বিরোধ চলিয়া আসিতেছিল। উক্ত বিরোধের জের ধরিয়া একই পরিবারের আপন দুই ভাই বিশ্বজিৎ চন্দ (৪০) এবং বিপুল চন্দ (৩৩), উভয় পিতা: ম”ত বীরেন্দ্র চন্দ, সাং: কানাইপুর, থানা: নবীগঞ্জ,জেলা: হবিগঞ্জ মিলে স্কুল রোড¯’ তাদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বিশ্বজিৎ হেয়ার ড্রেসার নামীয় সেলুনের সামনে ছত্তার মিয়া দাড়িয়ে ছিলেন। বর্নিত ঘটনার সময় পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে বিশ্বজিৎ চন্দ ও বিপুল চন্দ দুইভাই মিলে ছত্তার মিয়াকে তাদের সেলুনে ভেতরে জোড়পূর্বক ডুুকিয়ে নিয়ে যায় এবং তাদের হাতে থাকা কুড় ও চাকু দিয়ে গলায় মধ্যে আঘাত করে মারাত্মক জখম করে। ছত্তার মিয়ার হাল­াচিৎকারে ঘটনা স্থানে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসিলে বিশ্বজিৎ চন্দ পালিয়ে যায় এবং তাহার ভাই বিপুল চন্দ কে স্থানীয় লোকজন আটক করে। পুলিশ সংবাদ পাইয়া দ্রুত ঘটনাস্থলে আসিয়া বিপুল চন্দ কে গ্রেফতার করে এবং ভিকটিম ছত্তার মিয়া কে মারাত্মক রক্তারক্ত অবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নবীগঞ্জ এ নিয়ে আসলে কর্তব্যরত ডাক্তার ছত্তার মিয়াকে মৃত ঘোষনা করেন। পরবর্তীতে পুলিশ ছত্তার মিয়ার লাশ ময়না তদন্তের জন্য হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। পুলিশ ধৃত আসামী বিপুল চন্দকে নিয়ে পরের দিন অর্থাৎ ১৫/০১/২০১৬ইং তারিখ সকাল ১০:০০ ঘটিকার সময় আসামীগনের বাড়ি তল­াশি করে একটি পিস্তলও ০৬ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করে। উক্ত ঘটনাগুলো নিয়ে দুই ভাই বিশ্বজিৎ চন্দ ও বিপুল চন্দের বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা ও একটি অস্ত্র মামলা দায়ের হয়। হত্যার ঘটনা নিয়ে ছত্তার মিয়ার পিতা হারিছ মিয়া বাদী হয়ে ০২ ভাইকে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন, যাহা নবীগঞ্জ থানার মামলা নং -৩০, তাং- ১৪/০১/২০১৬ইং এবং পুলিশ বাদী হয়ে অস্ত্র আইনের একটি মামলা দায়ের করেন, যাহার নবীগঞ্জ থানার মামলা নং- ৩১, তাং- ১৫/০১/২০১৬ইং। এ বিষয়ে নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ এর নিকট জানতে চাইলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ঘটনাস্থান হইতে আসামী বিপুল চন্দকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপর আসামী বিশ্বজিৎ চন্দকে দ্রুত গ্রেফতার করার জন্য পুলিশ অভিযান পরিচালনা করিতেছে। শিঘ্রই তাহাকে গ্রেফতার করা হবে।

 

প্লিজ আপনি ও অপরকে নিউজটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করছি

এ জাতীয় আরো খবর..