1. newsmkp@gmail.com : Admin : sk Sirajul Islam siraj siraj
  2. info@fxdailyinfo.com : admi2017 :
  3. admin@mkantho.com : Sk Sirajul Islam Siraj : Sk Sirajul Islam Siraj
  • E-paper
  • English Version
  • রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৬:৩৩ পূর্বাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :
মৌলভীবাজারের ৫টি রেলওয়ে স্টেশন বন্ধ থাকায় এখন ভুতুরে বাড়ি: যাত্রী দুর্ভোগ চরমে: চুরি ও নষ্ট হচ্ছে রেলওয়ের মুল্যবান সম্পদ,নতুন বছরে দৃঢ় হোক সম্প্রীতির বন্ধন, দূর হোক সংকট: প্রধানমন্ত্রী. আজ রোববার উদযাপন হবে বই উৎসব. দুর্গম এলাকায় বিকল্প ব্যবস্থায় নতুন বই পাঠানো হবে: শিক্ষামন্ত্রী, নতুন বছরে নতুন শিক্ষাক্রম চালু হচ্ছে : শিক্ষামন্ত্রী, নতুন আশা নিয়ে মধ্যরাতে বরণ করা হবে ২০২৩ সাল, সিডনিতে আতশবাজির মধ্য দিয়ে ‘নিউ ইয়ার’ বরণ, ইংরেজি নববর্ষ উদযাপনে পুলিশের কড়াকড়ি,আবারও প্রেস ক্লাবের সভাপতি ফরিদা, সম্পাদক হলেন শ্যামল ,নতুন বছরকে স্বাগত জানাতে কুয়াকাটায় পর্যটকের ঢল

স্টোকস-ফকসের সেঞ্চুরিতে ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ ইংল্যান্ডের হাতে

  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৭ আগস্ট, ২০২২
  • ৪৭ বার পঠিত

ক্রীড়া ডেস্ক : প্রথম টেস্টে তিন দিনেই হেরে যাওয়া ইংল্যান্ড দ্বিতীয় টেস্টের নাটাই দ্বিতীয় দিনেই নিজেদের হাতে নিয়েছে। প্রথম ইনিংসে দক্ষিণ আফ্রিকার করা ১৫১ রানের জবাবে বেন স্টোকস ও বেন ফকসের জোড়া সেঞ্চুরিতে ভর করে ৯ উইকেট হারিয়ে ৪১৫ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করেছে। লিড নিয়েছে ২৬৪ রানের।

জবাবে প্রোটিয়ারা তাদের দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে কোনো উইকেট না হারিয়ে ২৩ রান তুলে দ্বিতীয় দিন শেষ করেছে। ইংল্যান্ডের প্রথম ইনিংসের চেয়ে তারা এখনো পিছিয়ে আছেন ২৪১ রানে। ক্রিজে আছেন সারিল এরউই (১২) ও অধিনায়ক ডিন এলগার (১১)। তারা দুজন শনিবার দ্বিতীয় দিনে ব্যাট করতে নামবেন।

তার আগে ৩ উইকেট হারিয়ে ১১১ রান তুলে প্রথম দিন শেষ করা ইংলিশরা শুক্রবার দ্বিতীয় দিনে ব্যাট করতে নামে। আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান জ্যাক ক্রাউলি ও জনি বেয়ারস্টো ১৪৭ রানের মধ্যেই সাজঘরে ফেরেন। ১৩৪ রানের মাথায় বেয়ারস্টো আউট হন ব্যক্তিগত ৪৯ রানে। এরপর ১৪৭ রানে ক্রাউলি ফিরেন ৩৮ রান করে। তাতে ১৪৭ রানেই ৫ উইকেট হারিয়ে বসে ইংলিশরা।

সেখান থেকে দলের হাল ধরেন অধিনায়ক বেন স্টোকস ও বেন ফকস। ষষ্ঠ উইকেটে তারা দুজন ৩২৪ বলে ১৭৩ রান তুলেন। এ যাত্রায় স্টোকস তুলে নেন সেঞ্চুরি। ১৫৮ বলে ৬টি চার ও ৩ ছক্কায় সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন তিনি। এটা ছিল তার টেস্ট ক্যারিয়ারের ১২তম সেঞ্চুরি। আর ইংল্যান্ডের পূর্ণকালিন অধিনায়ক হওয়ার পর প্রথম।

অবশ্য ৯২ রানে জীবন পেয়ে সেঞ্চুরি করার পর বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি তিনি। দলীয় ৩২০ রানের মাথায় কাগিসু রাবাদার বলে এজ হয়ে কাভারে ধরা পড়েন ডিন এলগারের হাতে। ১৬৩ বলে ১০৩ রান করে সাজঘরে ফেরেন তিনি।

তিনি আউট হওয়ার পর ৩৬১ রানে স্টুয়ার্ড ব্রড (২১) ও ৩৯৫ রানে অলি রবিনসন (১৭) আউট হন। এ সময় ফকস তুলে নেন সেঞ্চুরি। তিনি ২০৬ বল খেলে ৯টি চারের সাহায্যে টেস্ট ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় সেঞ্চুরির স্বাদ নেন। তাও চার বছর পর। সবশেষ ২০১৮ সালের নভেম্বরে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরিটি করেছিলেন তিনি।

অবশ্য উইকেটরক্ষক হিসেবে ঘরের মাঠে দ্বিতীয় কোনো ব্যাটসম্যান হিসেবে সেঞ্চুরি করার কৃতিত্ব দেখিয়েছেন তিনি। দলীয় ৪১৫ রানের মাথায় জ্যাক লিচ ব্যক্তিগত ১১ রানে আউট হলে ইনিংস ঘোষণা করে ইংল্যান্ড। ফকস ২৯৯ বল খেলে ৯ চারে ১১৩ রানে অপরাজিত থাকেন।

প্লিজ আপনি ও অপরকে নিউজটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করছি

এ জাতীয় আরো খবর..